ঢিলেঢালা লকডাউনে রিকশা-অটোরিকশার দাপট

 ঢিলেঢালা লকডাউনে রিকশা-অটোরিকশার দাপট


জহিরুল ইসলাম মিশু,সিলেট : দেশব্যাপী করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে সরকার ঘোষিত সপ্তাহব্যাপী কঠোর লকডাউনে সিলেট  মহানগরীতে চলছে ঢিলেঢালা লকডাউন। লকডাউনের প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় দিনের তুলনায় আজ চতুর্থদিন নগরজুড়ে ঢিলেঢালা ভাব লক্ষ্য করা গেছে। এদিকে মাস্ক পরিধান ও স্বাস্থ্যবিধিও মানছে না অনেকে। এদিকে সিলেটে সর্বাত্মক লকডাউন বাস্তবায়নে কাজ করছে প্রশাসন।

শনিবার ১৭ এপ্রিল কঠোর লকডাউনের চতুর্থদিন সিলেট নগরীর বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা যায় মানুষজন অবাধে চলাচল করছেন। এছাড়া নানা মানুষকে অযুহাতে ঘর থেকে বেড়িয়ে ঘুরাফেরা করতে দেখা গেছে। অনেকেই সঠিকভাবে মাস্ক ব্যবহার ও স্বাস্থ্য বিধি মানছেন না।

সিলেট মহানগরের শহরে সবকটি কাঁচাবাজার, মুদির দোকান ও ওষুধের দোকান খোলা থাকলেও অন্যন্যদিনের মতো নগরের বিপনীবিতান, মার্কেটসহ সকল ফ্যাশন হাউজ বন্ধ রয়েছে। শহরে জরুরি পরিবহন চলাচল ছাড়াও ব্যক্তিগত যানবাহন, সিএনজি চালিত অটোরিকশা, রিকশা ও  মোটরসাইকেল চলাচল করতে দেখা গেছে।

সিলেটের বন্দরবাজার,আম্বরখানা,সুবিদবাজার,শিবগঞ্জ,টিলাগড়, জিন্দাবাজার,পাঠানটুলা,রিকাবিবাজার, মদিনা মার্কেট এলাকায় গত দুই দিনের তুলনায় মানুষের আনাগোনা অনেক বেশি দেখা গেছে। নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য বা মুদিদোকানের পাশাপাশি একটি–দুটি করে খুলছে অন্যান্য দোকান। একই সাথে ভ্রাম্যমাণ ব্যাবসায়ীদেরও সড়কে বলে ব্যবসা করতে দেখা গেছে। এতে বেড়েছে মানুষের আনাগোনা বা চলাচল।

এদিকে গত তিনদিনের মতোই ভোর থেকে সিলেট নগরীর সকল প্রবেশপথ ও গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে চৌকি বসিয়ে তল্লাশি শুরু করে পুলিশ। প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় দিনের চেয়ে রাস্তায় তুলনামূলক শিথিলভাবে দেখা গেছে। সকালে সিলেটের বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, পুলিশ চেকপোস্টগুলো প্রথম দিনের চেয়ে চতুর্থ দিন কিছুটা নমনীয়। তবে কিছু কিছু মোটরসাইকেল আরোহীদের পুলিশি বাধার মুখে পড়তে দেখা গেছে।

 বিআলো/শিলি